• Page Views 24

আমাকে মিয়ানমারে পাঠানোর আগে এখানেই গুলি করতে হবে: অ্যাঞ্জেলিনাকে ধর্ষিত নারী

চারদিনের সফরে বাংলাদেশে আসা জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা-ইউএনএইচসিআরের বিশেষ দূত ও হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি কক্সবাজারে রোহিঙ্গা শিবির পরিদর্শন করেছেন। গত দুদিন তিনি শরণার্থী শিবিরগুলোতে আশ্রিত রোহিঙ্গাদের ঘরগুলো ঘুরে দেখেন। তিনি শিশু, নারীসহ নানা বয়সী মানুষের সঙ্গে কথা বলেন। নির্যাতিত-নিপীড়িত মানুষের সঙ্গে কথা বলে তাদের দুঃখ বোঝার চেষ্টা করেন।

মিয়ানমারের রাষ্ট্রীয় হত্যাযজ্ঞের শিকার হয়ে বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গা নারী-পুরুষের কষ্টের কথা মন দিয়ে শোনেন হলিউডের এ সাড়াজাগানো অভিনেত্রী। মঙ্গলবার কুতুপালংয়ে এক রোহিঙ্গা শিবিরে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর ধর্ষণের শিকার এক নারীর ভয়াবহ অভিজ্ঞতার কথা শোনেন তিনি। ওই সময় ওই নারীসহ অন্যরা জোলিকে বলেন, হয় তাদের বাংলাদেশে রাখা হোক, নতুবা গুলি করে মেরে ফেলা হোক। তবু তারা মিয়ানমারে ফিরে যাবেন না।

তখন অনেক নারী রাখাইনে ফিরে যাবেন না বলে তাকে জানান।তাদের ফিরে যাওয়ার নিরাপদ পরিবেশ সৃষ্টির দায়িত্ব মিয়ানমার সরকারের বলে জানান জোলি।

মঙ্গলবার বিকালে উখিয়ার কুতুপালং মধুরছড়া ক্যাম্প-৫ এ প্রেস ব্রিফিংয়ে জোলি বলেন, রোহিঙ্গাদের সঙ্গে কথা বলে জেনেছি- মিয়ানমারে অসংখ্য নারী-পুরুষ সেনা নির্যাতনের শিকার হয়েছেন।

এখনও তাদের মিয়ানমারে ফেরত পাঠানো উপযুক্ত পরিবেশ সৃষ্টি হয়নি। তারা জানিয়েছেন, হয় তাদের বাংলাদেশে রাখা হোক, না হয় গুলি করে মেরে ফেলা হোক।

তিনি বলেন, ‘এখন সবার দায়িত্ব হলো রাখাইনে যথাযথ নিরাপত্তা নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত যেন তাদের ফেরত না পাঠানো হয়। নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের আশ্রয় ও অন্য সুবিধা দেয়ার জন্য তিনি বাংলাদেশের প্রশংসা করেন এবং বাংলাদেশের পাশে দাঁড়াতে বিশ্ব সম্প্রদায়ের প্রতি আহ্বান জানান।

সংখ্যাটা এত বড় যে, একা বাংলাদেশ সামলাতে পারবে না। এ কারণেই সবার সহযোগিতা দরকার। এ ছাড়া বিশ্ব সম্প্রদায়ের উচিত রোহিঙ্গারা যাতে নিজ দেশে নাগরিকত্ব পেয়ে মর্যাদার সঙ্গে বসবাস করতে পারে সেটি নিশ্চিত করা।’

জোলি বলেন, ‘নির্যাতনের শিকার হয়ে ২০১৭ সালের আগস্টের পর সাত লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছেন। এখনও মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে রোহিঙ্গারা আসছেন। বাংলাদেশ উদার হস্তে এসব রোহিঙ্গাকে গ্রহণ করে নিরাপদ আশ্রয়ের ব্যবস্থা করছে, যা খুবই তাৎপর্যপূর্ণ বিষয় এবং মানবতার জন্য অনন্য এক দৃষ্টান্ত।’

তিনি বলেন, ‘মিয়ানমার থেকে আসা রোহিঙ্গারা খুবই অসহায়। এসব মানুষ শুধু বাস্তুচ্যুতই হয়নি; তারা এখন রাষ্ট্রবিহীন জনগোষ্ঠী। মিয়ানমার কর্তৃপক্ষ রোহিঙ্গাদের নাগরিকত্বসহ অন্যান্য মৌলিক অধিকারকে অগ্রাহ্য করছে।’

প্রেস ব্রিফিংয়ে জোলি রাখাইনে রোহিঙ্গাসহ সব সম্প্রদায়ের অবস্থা উন্নয়নে মিয়ানমার কর্তৃপক্ষের সদিচ্ছা প্রকাশের আহ্বান জানান। তিনি বলেন, ‘যারা মানবাধিকার লঙ্ঘন করেছে, তাদের অবশ্যই নিজ কাজের জন্য জবাবদিহি করতে হবে।’

সূত্র: দৈনিক ইনকিলাব   

Share

ভেনেজুয়েলায় গৃহযুদ্ধ শুরু হয়ে যেতে পারে : মাদুরো

Next Story »

বিশ্বকাপে যে দলকে কঠিন চ্যালেঞ্জ মনে করেন শচীন

Leave a comment

LifeStyle

  • মধুর ক্যান্টিনে ছাত্রদল

    5 days ago

    ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনকে সামনে রেখে দীর্ঘ প্রায় ৯ বছর পর মধুর ক্যান্টিনে প্রবেশ করেছে ছাত্রদল। আজ বুধবার সকাল ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রদলের ...

    Read More
  • বেঙ্গল বই, যেখানে বইয়ের মাঝে ডুবে থাকা যায়

    5 days ago

    কথায় বলে মানুষের শ্রেষ্ঠ বন্ধু হতে পারে বই। আর যারা বইয়ের সাথে এমন বন্ধুত্ব গড়েছেন তারা চাইলে ডুবে যেতে পারেন বেঙ্গল বই এ থাকা হাজারো বইয়ের সমারোহে।  ...

    Read More
  • দীর্ঘ সময় অফিস করেও নিজেকে ফিট রাখতে

    5 days ago

    যারা অফিসে ডেস্কে কাজ করেন এদের মধ্যে মুটিয়ে যাওয়ার প্রবণতা খুব বেশি দেখা যায়। আর তাদের প্রধান অভিযোগ হচ্ছে, চেয়ারে বসে কাজ করে এত মোটা হয়ে যাচ্ছি।  এই ...

    Read More
  • করে নিন সেরা ডেট প্লান

    5 days ago

    সামনেই ভালোবাসা দিবস, দিনটি ঘিরে ভালোবাসার মানুষের জন্য সবারই রয়েছে বিশেষ পরিকল্পনা। এবারের দিনটিতে পরিকল্পনা এভাবে করুন, যেন মনে হয় এটাই প্রিয়জনের সঙ্গে এপর্যন্ত কাটানো সেরা ভ্যালেন্টাইন’স ডে।  ...

    Read More
  • হলুদে হলুদে ফাগুন বরণ

    5 days ago

    পহেলা ফাল্গুল এলেই চারদিকে ফুলে ফুলে ভরে ওঠে। বসন্ত বরণেও আমরা সেই ফুলের রঙেই সাজতে পছন্দ করি। আর অন্য রং ছাপিয়ে সামনে আসে হলুদ রং। প্রকৃতিতে হলুদ, ...

    Read More
  • বসন্ত এলো বলে…

    5 days ago

    বাঙালি সংস্কৃতির অন্যতম উৎসব বসন্ত এলো বলে, সবাই অপেক্ষায় বাসন্তী রঙে নিজেকে রাঙাতে। বিশেষ দিনে প্রকৃতির রূপের সঙ্গে মিল রেখে সাজের পথ বাতলে দিয়েছেন ওমেন্স ওয়ার্ল্ডের সিইও ...

    Read More
  • ভালোবাসা দিবসে ওমেন্স ওয়ার্ল্ডে

    5 days ago

    পুরো বছরের অপেক্ষা শেষে এলো ভালোবাসা দিবস। বিশেষ দিনটিতে নিজেকে সাজান উৎসবের রঙে আর মেতে উঠুন ভালোবাসার উচ্ছ্বাসে।  সৌন্দর্য সচেতন নারীরা সাশ্রয়ী মূল্যে ভালোবাসা দিবসে ওমেন্স ওয়ার্ল্ডে ...

    Read More
  • ছাড়ের মৌসুম!

    5 days ago

    রাজধানী জুড়েই চলছে ছাড়ের মৌসুম। চারদিকে ফ্যাশন হাউসগুলোতে অবিশ্বাস্য ছাড়। কোনো কোনা হাউস তো সব পণ্যে দিচ্ছে ৭০শাতাংশ ছাড়। শপিংমলগুলোতে উপচে পড়া ভিড় দেখে মনে হতেই পারে, হয়ত ...

    Read More
  • হার্ট শেপের কুকিজ আর চকলেট

    5 days ago

    ভালোবাসা দিবসে প্রিয়জনকে আরেকটু বেশি খুশি করার একটা সুযোগ নিতে পারেন। হার্ট শেপের কিছু কুকিজ আর চকলেট ঘরেই তৈরি করে নিন। খুব সহজ, জেনে নিন রেসিপি:  চকলেটযা ...

    Read More
  • মাতৃত্বকালীন ছুটি ৯ মাস!

    5 days ago

    দেশের কর্মজীবী নারীদের মা হওয়ার প্রতি আগ্রহ যেন দিন দিন কমে যাচ্ছে। এর মূলে রয়েছে গর্ভাবস্থায় ও সন্তান জন্মের পর দেখভালের জন্য পর্যাপ্ত সময় না পাওয়া।  আবার ...

    Read More
  • Read

    More